বিল দিতে না পারায় ৬০ হাজার টাকায় নবজাতককে বিক্রি!


ঢাকার ধাম’রাইয়ে হাসপাতা’লের বিল দিতে না পেরে ৬০ হাজার টাকায় নবজাতককে বিক্রির অ’ভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় এক নার্সসহ তিনজনকে আ’ট’ক করেছে পু’লিশ।

সোমবার সকালে সাভা’রের রাজফুলবাড়িয়ায় অ’ভিযান চালিয়ে নবজাতকটিকে উ’দ্ধার করা হয়। পরে তার মায়ের কোলে হস্তান্তর করে পু’লিশ। আ’ট’করা হলেন- নার্স সাদিয়া বেগম, নবজাতক ক্রেতা হেলাল উদ্দিন ও তার স্ত্রী’ সাথী আক্তার।

পু’লিশ জানায়, গত ২৬ জুন রাতে ধাম’রাইয়ের সুতিপাড়া ইউপির বাটারখোলা এলাকার গুচ্ছ গ্রামের ভাড়াটিয়া মৃ’ত বাবুল হোসেনের স্ত্রী’ নাজমা বেগমের প্রসব বেদনা ওঠে।

তিনি স্থানীয় নারী ইউপি সদস্য আছিয়া বেগমের সহযোগিতায় কালামপুর ডাউটিয়া এলাকার রাবেয়া মেমোরিয়াল মেডিকেল কলেজ হাসপাতা’লে ভর্তি হন। রাতে একটি ছে’লে সন্তান প্রসব করেন তিনি। তবে সংসারে অভাবের কারণে হাসপাতা’লের বিল পরিশোধ করা তার পক্ষে অসাধ্য হয়ে পড়ে।
এ ঘটনায় ওই হাসপাতা’লের নার্স সাদিয়া বেগমের পরাম’র্শে নিজের ছে’লে শি’শুটিকে রোববার ৬০ হাজার টাকায় বিক্রি করেন। পরে হাসপাতা’লের ১০ হাজার ৫০০ টাকা বিল পরিশোধ করেন।

এদিকে মায়ের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে নবজাতক শি’শুটিকে বিক্রিতে সহায়তার অ’ভিযোগে নার্সকে আ’ট’ক করা হয়। পরে তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে সোমবার সকালে সাভা’রের রাজফুলবাড়িয়া এলাকায় অ’ভিযান চালিয়ে নবজাতকটিকে উ’দ্ধার করা হয়। এ সময় নবজাতককে কেনার অ’প’রাধে হেলাল দম্পতিকে দম্পতিকেও আ’ট’ক করে পু’লিশ।

ধাম’রাই থা’না পু’লিশের ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, নবজাতক বিক্রির ঘটনায় জ’ড়িত তিনজনকে আ’ট’ক করা হয়েছে। নবজাতককে তার মায়ের কাছে ফিরিয়ে দেয়ার পাশাপাশি সরকারিভাবে সাহায্যের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। আ’ট’কদের বি’রুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।


Best bangla site

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *